জাতীয় সংবাদ

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়েই যাচ্ছে এনআইডি

Written by CrimeSearchBD

নির্বাচন কমিশন আপত্তি জানালেও জাতীয় পরিচয়পত্র নিবন্ধন কার্যক্রম স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধীনে যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী ও আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির সভাপতি আ ক মোজাম্মেল হক। বুধবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির সভার পর সাংবাদিকদের তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী নির্দেশনা দিয়েছেন, এটা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় করবে।’ অন্যদিকে এই পদক্ষেপকে সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠান নির্বাচন কমিশনের ক্ষমতা খর্ব করার চেষ্টা হিসেবে দেখার কথা জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার।
বুধবার আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির ষষ্ঠ সভা শেষে সাংবাদিকরা এ বিষয়ে জানতে চাইলে মন্ত্রী মোজাম্মেল বলেন, জনগণের ভোগান্তি কমাতেই সরকার এই পদক্ষেপ নিয়েছে। আর স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব নেওয়ার পর কীভাবে কাজ চলবে, সেই নির্দেশনা দেওয়ার কথাও জানান তিনি।
মোজাম্মেল বলেন, আমরা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে নির্দেশনা দিয়েছি, দিনে ৫০০ এনআইডি করার সীমা তুলে দিতে হবে। ক্যাপাসিটি বাড়াতে হবে। কারণ অনেক মানুষের আবেদন পেন্ডিং আছে। সর্বোচ্চ এক মাসের মধ্যে এনআইডি করে দিতে হবে। কোনো কারণে কাউকে নির্ধারিত সময়ে এনআইডি দেওয়া সম্ভব না হলে কী কারণে দেওয়া যাচ্ছে না, তা এক মাসের মধ্যে লিখিতভাবে জানিয়ে দিতে বলা হয়েছে বলেও জানান তিনি। মোজাম্মেল বলেন, করোনাভাইরাসের অজুহাত দেওয়া যাবে না। অফিস বন্ধের কথা বলা যাবে না। বাড়ি বসে কাজ করা যায়। স্থানান্তর করার পর পেন্ডিং কাজগুলো দুই মাসের মধ্যে শেষ করতে হবে। আবেদন ৩০ কার্যদিবসের মধ্যে শেষ করতে হবে। আমরা জবাবদিহিতামূলক কার্যক্রম চালু করতে চাই। ইসির আপত্তির বিষয়ে তিনি বলেন, নির্বাচন কমিশনের কাজ ভোটার তালিকা তৈরি এবং ভোটের কাজ পরিচালনা করা। কোনো দেশে এনআইডির কাজ নির্বাচন কমিশন করে না।

About the author

CrimeSearchBD