করোনা ভাইরাস

গাজীপুরে ১১ পোশাক কারখানার ১৫ শ্রমিক করোনা আক্রান্ত

Written by CrimeSearchBD

গাজীপুরের ১১ পোশাক কারখানার পাঁচ নারী শ্রমিকসহ ১৫ জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। তাঁদের মধ্যে পাঁচজন হাসপাতালে ভর্তি এবং ১০ জন হোম আইসোলেশনে রয়েছেন।

এদের মধ্যে গাজীপুরে পাঁচজন এবং অন্য ১০ জন তাঁদের নিজ জেলায় নমুনা পরীক্ষায় কোরনা শনাক্ত হয়েছেন।

বুধবার পর্যন্ত প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী পোশাক কারখানার ১৫ জন শ্রমিকের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

গাজীপুর সিভিল সার্জন অফিস, শিল্পাঞ্চল পুলিশ এবং সূত্রে জানা যায়, গাজীপুরে করোনা পজেটিভ ১৫ জন পোশাক শ্রমিকের মধ্যে ৫ জন গাজীপুরে ও ১০ শ্রমিক বিভিন্ন জেলায় নমুনা পরীক্ষার পর কোভিড-১৯ শনাক্ত হয়েছে।

তাঁদের মধ্যে পাঁচজন কোভিড ১৯ ডেডিকেটেড বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসাধীন। অপর ৭ জন গাজীপুর এবং ৩ জন তাঁদের স্থায়ী ঠিকানায় হোম আইসোলেশনে রয়েছেন।

শনাক্তের মধ্যে গাজীপুর মহানগরের গাছা থানার বড়রাড়ী এলাকার একটি পোশাক কারখানার একজন পুরুষ শ্রমিক (২৪)। তাঁর বাড়ি রংপুরের পীরগঞ্জে। সাইনবোর্ড এলাকার একটি পোশাক কারখানার ২ জন পুরুষ শ্রমিক (১৮) ও (২৫) এবং অপর একটি কারখানার একজন পুরুষ শ্রমিক (৪০)।

তাঁদের মধ্যে একজনের বাড়ি লালমনিরহাটের ক্ষেতলাল উপজেলায় অপর দুইজন আদিতমারী উপজেলায়। টঙ্গীর মুদাফা এলাকার একটি পোশাক কারখানার এক পুরুষ শ্রমিক (৩৫) করোনা শনাক্ত হয়েছে, তাঁর বাড়ি নওগাঁ জেলায় বদলগাছী।

আউচপাড়া এলাকার একটি পোশাক কারখানার দুই জন শ্রমিক কোরনা শনাক্ত হয়েছে। তাদের একজন পুরুষ (২৮) অপরজন নারী (২১)। তাঁদের বাড়ি ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জে।

গাজীপুরা এলাকার একটি পোশাক কারখানার এক নারী শ্রমিকও (৩২) কোভিড-১৯ শনাক্ত হয়েছে, তাঁর বাড়ি জামালপুর জেলা সদরে। করোনা শনাক্তদের মধ্যে আরো রয়েছে জয়দেবপুর থানার নতুন বাজার এলাকার একটি পোশাক কারখানার পুরুষ শ্রমিক (২৬) একজন। তাঁর বাড়ি জয়পুরহাটের কালাই উপজেলায়।

বাঘেরবাজার এলাকার দুই কারখানার তিন নারী শ্রমিকসহ ৪ জন। চারজনই সুনামগঞ্জে জেলার তাহেরপুরের। পুরুষ শ্রমিকের বয়স (৪৫), দুই নারী শ্রমিকের বয়স (৩০) অপর জনের বয়স (১৯)।

এছাড়াও কাশিমপুরের সাবাবো এলাকার একটি পোশাক কারখানার একজন পুরুষ শ্রমিক কোভিড-১৯ শনাক্ত হয়েছে। তাঁর বাড়ি টাঙ্গাইলের নাগরপুরে। শ্রীপুরের তেলিহাটি এলাকার একটি কারখানার একজন পুরুষ শ্রমিক (৩০) কোভিড-১৯ শনাক্ত হয়েছে। তাঁর বাড়ি চুয়াডাঙ্গা দামুড়হুদা উপজেলায়।

গাজীপুর সদর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মোহাম্মদ শাহিন বলেন, গাজীপুর সদর ও মহানগরের মোট ১২ জন পোশাক শ্রমিক কোভিড-১৯ শনাক্ত হয়েছে। তাঁদের মধ্যে ৫ শ্রমিকের নমুনা পরীক্ষা গাজীপুরে হয়েছে। দুইজনের টঙ্গীর গণস্বাস্থ্য হাসপাতালে এবং অন্য পাঁচজন তাদের নিজ জেলায় নমুনা পরীক্ষায় করোনা শনাক্ত হয়েছেন। গাজীপুরে হোম আইসোলেশনে রয়েছেন ৬ জন।

শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) মো. রফিকুল ইসলাম বলেন, তিনটি পোশাক কারখানার ৩ জন শ্রমিক করোনা শনাক্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি আছে।

[poll id=”1″]

About the author

CrimeSearchBD