ক্রাইম

টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা ডাকাত নিহত

Written by Mahmudul Hasan

দ্বিতীয় দফায় ২১ ইয়াবা কারবারি আত্মসমর্পণের ১২ ঘন্টার মাথায় র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ইলিয়াছ (৪০) নামে এক রোহিঙ্গা ডাকাত নিহত হয়েছে। নিহত মো. ইলিয়াছ ওরফে ডাকাত ইলিয়াছ টেকনাফ-২৬ নম্বর ক্যাম্পের ডি-ব্লকের বাসিন্দা।

সোমবার (৩ ফেব্রুয়ারি) রাতে টেকনাফ জাদিমোরা রোহিঙ্গা শিবির ক্যাম্পে ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনা ঘটে। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে একটি থ্রি কোয়ার্টার গান, একটি ওয়ান শুটার গানও চারটি তাজা কার্তুজ উদ্ধার করা হয়েছে।

র‌্যাব-১৫ এর টেকনাফ ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার মির্জা শাহেদ মাহতাব জানান, সোমবার (৩ ফেব্রুয়ারি) দিনগত রাতে র‌্যাবের একটি দল উপজেলার জাদিমোরা রোহিঙ্গা শিবির ক্যাম্পে ডাকাত জকিরকে ধরতে সাড়াশি অভিযান চালায় । এ সময় র‌্যাবের সঙ্গে ডাকাতদের গুলিবিনিময় হয়। এতে অন্তত ১২ জন আহত হয়।

তিনি আরও জানান, এ ঘটনায় ডাকাত ইলিয়াছ গুলিবিদ্ধ হয়। পরে তাকে উদ্ধার করে টেকনাফ হাসপাতালে নেওয়া হলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। এ সময় র‌্যাবের তিন সদস্য আহত হয়েছে এ ঘটনায় পৃথক আইনে মামলা হচ্ছে বলে জানান তিনি।

সূত্র জানায়, সোমবার রাত ৯টার দিকে টেকনাফের নয়াপাড়া রোহিঙ্গা শিবিরে চাঁদাবাজি করতে গিয়ে বাকবিতন্ডায় ডাকাত জকির গ্রুপের এলোপাতাড়ি গুলিতে ১৪ রোহিঙ্গা গুলিবিদ্ধ হন। এ ঘটনার পরই শৃঙ্খলা বাহিনী সেখানে অভিযান চালায়।

এদিকে, এ গোলাগুলির ঘটনার ১২ ঘন্টা আগে টেকনাফ সরকারি কলেজ মাঠে আত্মসমর্পণ অনুষ্ঠানে দ্বিতীয় দফায় ২১ ইয়াবা ও হুন্ডি কারবারি আনুষ্ঠানিক আত্মসমর্পণ করে। জেলা পুলিশ আয়োজিত আত্মসমর্পণ অনুষ্ঠানে চট্টগ্রামের ডিআইজির হাতে তারা আত্মসমর্পণ করেন। এসময় ২১ হাজার ইয়াবা, ১০টি আগ্নেয়াস্ত্র ও ৩০টি তাজা কার্তুজ জমা দেয় তারা। এ ঘটনার তিনঘণ্টা পর রোহিঙ্গা ক্যাম্পে গোলাগুলি ও ১২ ঘন্টা পার না হতেই বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে।

About the author

Mahmudul Hasan

Leave a Comment